পেনশন নিয়ে বড়সড় ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

জয়পুর: স্বাধীনতা সংগ্রামীদের পেনশন এবং চিকিৎসা সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে বৃহস্পতিবার এক বড়সড় ঘোষণা করলেন রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলট৷ দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সেনা, শহিদের স্ত্রীরা ডবলেরও বেশি এই পেনশন পাবেন প্রতি মাসে ৪,০০০ থেকে তা ১০,০০০ টাকা হবে৷ স্বাধীনতা সংগ্রামীদের পেনশন বেড়ে ২৫,০০০ টাকা এবং চিকিৎসা ভাতা প্রতি মাসে ৫,০০০টাকা দেওয়া হবে৷

সমাজকর্মী এবং গান্ধীবাদী এসএন সুব্বা রাওয়ের জন্মবার্ষিকীর একট অনুষ্ঠানে এই ঘোষণা করেন তিনি৷ তিনি বলেন স্বাধীনতা সংগ্রামীরা আগে প্রতি মাসে ২০,০০০টাকা পেনশন পেতেন, তবে এবার থেকে তাঁরা ২৫,০০০টাকা করে পাবেন৷ চিকিৎসা ভাতা প্রতি মাসে ১,০০০টাকা থেকে বাড়িয়ে ৫,০০০ টাকা করে দেওয়া হয়৷

- Advertisement -

প্রসঙ্গত, গত ১ ফেব্রুয়ারি বাজেটের দিন পেনশন সংক্রান্ত ঘোষণা করেন পীযূশ গোয়েল৷ দেশের অসংরক্ষিত শ্রমিকদের জন্য সুখবর দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী৷ ভারপ্রাপ্ত অর্থমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল অসংরক্ষিত শ্রমিক-কর্মচারীদের জন্য পেনশন চালু করার কথা ঘোষণা করেন৷ প্রকল্পটির নাম প্রধানমন্ত্রী শ্রমযোগী যোজনা৷ গোয়েলের ঘোষণা অনুযায়ী, প্রতি মাসে ৩০০০ টাকা পেনশন পাওয়া যাবে৷ তবে এই পেনশন পেতে গেলে মাসে ১০০ টাকা জমা রাখতে হবে৷

যদি শ্রমিক কর্মচারীদের বয়স ১৮ বছরের ঊর্ধ্বে হয় তবে তার মাসে ৫৫ টাকা রাখলেই হবে৷ তবে ২৯ বছরের ঊর্ধ্বে বয়স হলে ১০০ টাকা জমা রাখতে হবে৷ অসংরক্ষিত শ্রমিক-কর্মচারীরা এই পেনশন পাবেন ৬০ বছর বয়সের পর থেকে৷ ততদিন পর্যন্ত টাকা প্রতিমাসেই টাকা জমা দিয়ে যেতে হবে৷ মোদী সরকারের দাবি – এটিই বিশ্বে সর্ববৃহৎ অসংরক্ষিত কর্মীদের জন্য পেনশন স্কিম৷ তবে আবেদনকারী শ্রমিকদের মাসিক রেজগার মাসে ১৫ হাজার টাকা পর্যন্ত হতে হবে৷