হাই প্রোফাইল ঋণ খেলাপিদের কথা প্রধানমন্ত্রীকে জানিয়েছিলেন রাজন

নয়াদিল্লি: প্রধানমন্ত্রীর কাছে ঋণ খেলাপিদের তালিকা পাঠান হয়েছিল যাদের মধ্যে কয়েকজন হাই-প্রোফাইল বলে দাবি করলেন রিজার্ভ ব্যাংকের প্রাক্তন গভর্নর রঘুরাম রাজন৷ অনুৎপাদক সম্পদ বৃদ্ধিজনিত সমস্যা প্রসঙ্গে সংসদীয় কমিটির প্রশ্নের জবাবে একথা জানিয়েছেন রাজন৷

রঘুরাম রাজন জানান, তিনি গভর্নর থাকাকালীণ রিজার্ভ ব্যাংক প্রতারণা নজরদারি সেল গঠন করেছিল এই সব বিষয়ে তদন্ত করতে৷ সেই সময় হাই প্রোফাইল লোকেদের তালিকা পিএমও-তে পাঠান হয়েছিল৷ তখন তাদের দুএকজনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আর্জিও জানান হয়৷ দ্রুত ব্যবস্থা নিতে বলা হলেও সেই বিষয়ে কাজ কতটা এগিয়ে ছিল তা তাঁর জানা নেই বলেই তিনি জানান৷

ওই সংসদীয় কমিটির চেয়ারম্যান মুরলী মনোহর যোশীর কাছে তিনি এক নোট পাঠিয়ে জানান, ইউপিএ এবং এনডিএ উভয় আমলেই দিল্লিতে সরকারি সিদ্ধান্তের জেরে বিভিন্ন রকম প্রশাসনিক সমস্যা যেমন কয়লা খনি বন্টনজনিত তদন্তের গতি ধীর করে দেওয়া হয়েছে৷

- Advertisement -

রঘুরাম রাজনের রিপোর্ট অনুসারে বেশির ভাগ অনুৎপাদক সম্পদের সৃষ্টি হয়েছিল ইউপিএ আমলে ২০০৬-০৮ সালে৷ আর সেটাকেই হাতিয়ার করে এর আগে মঙ্গলবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি কংগ্রেসকে আক্রমণ করেন ৷

রাজন তিন বছরের জন্য রিজার্ভ ব্যাংকের গভর্নর ছিলেন ২০১৬ সালের সেপ্টেম্বর পর্যন্ত৷ অর্থাৎ দুই আমলেই তিনি দেশের শীর্ষ ব্যাংকের দায়িত্বে ছিলেন৷ তবে রঘুরাম রাজন ইউপিএ এবং এনডিএ দুই সরকারকেই দোষারোপ করেছেন সিদ্ধান্ত নিতে দেরি করার জন্য৷ এরফলে বিভিন্ন প্রকল্পের খরচ বেড়ে যেত এবং তারফলে ঋণে পরিশোধ করা জটিল হয়ে যেত বলে তাঁর অভিমত৷

Advertisement
---