প্রতীকী ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, বারুইপুর: বছর দুয়েক আগে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্যোগে বাংলায় শুরু হয় ‘সেফ ড্রাইভ, সেভ লাইফ’ কর্মসূচি৷ কিন্তু সেই উদ্যোগ সঠিক ভাবে পালন হচ্ছে না বলে বারবার অভিযোগ উঠছে৷

তাই বছরের বিভিন্ন সময় পুলিশ-প্রশাসন নানা ভাবে নজরদারি চালিয়ে বাইক আরোহীদের মাথায় হেলমেট পরানোর ব্যবস্থা করে৷ কিন্তু তাতেও অভিযোগ থামছিল না৷ বরং বাড়ছিল৷

Advertisement

আরও পড়ুন: এবার রিচার্জ করুন মাত্র ৯ টাকায়

আরও পড়ুন: ‘ঝুমা বৌদি’ এবার আরও HOt! সামলাতে পারবেন তো ঠাকুরপোরা

অভিযোগ উঠছিল মুসলিম যুবকদের নিয়ে৷ তাঁরা বাইক চালানোর সময় হেলমেটের বদলে ধর্মীয় টুপি ব্যবহার করতেন৷ এতে দুর্ঘটনা ঘটছিল বারবার৷ পুলিশ তাতে নিষ্ক্রিয় থাকত বলে অভিযোগ উঠছিল৷

কিন্তু বৃহস্পতিবার দক্ষিণ ২৪ পরগনার বারুইপুরে দেখা গেল উলটো ছবি৷ সেখানে পথ নিরাপত্তার পাঠ দিতে পথে নামল পুলিশ৷ সাহায্য নিল মাদ্রাসার পড়ুয়াদের৷ স্লোগান উঠল, ‘ধর্মের থেকে জীবন বড়। জীবন বাঁচলে ধর্ম বাঁচবে৷’

আরও পড়ুন: বিজেপিকে ভারত ছাড়া করতে পথে নামল মমতার দল

আর এই স্লোগানে ভর করেই এদিন দিনভর যেসমস্ত বাইক আরোহী হেলমেটের বদলে ধর্মীয় টুপি পরে যাচ্ছিলেন, তাদের ধরা হল৷ বোঝানো হল৷ আর দেওয়া হল একটি হেলমেট৷ ভবিষ্যতে যাতে এমন কেউ না করেন, তার প্রতিশ্রুতিও আদায় করে নেওয়া হল৷

দক্ষিণ ২৪ পরগণার বারুইপুরের পদ্মপুকুর মাদ্রাসার সামনে এই সচেতনতা শিবির আয়োজন করা হয়েছিল৷ মূলত ওই মাদ্রাসার পড়ুয়ারাই অংশ নেন ওই কর্মসূচিতে৷

আরও পড়ুন: গ্রামের মুসলিম নামে ছড়াছিল বিভ্রান্তি, তাই বদলে গেল নাম

এছাড়া ছিলেন বিভিন্ন মাদ্রাসার মৌলবি সাহেব, বারুইপুর পুলিশ জেলার ডেপুটি পুলিশ সুপার (ট্রাফিক) মহম্মদ কুতুবউদ্দিন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সৈকত ঘোষ, এসডিপিও বারুইপুর অর্ক বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ অন্যরা৷

----
--