বড়সড় সেক্স-র‍্যাকেটের পর্দাফাঁস, অশ্লীল অবস্থায় উদ্ধার বহু

বেঙ্গালুরুঃ  বিউটি পার্লারের আড়ালে মধুচক্রের ব্যবসা! বড়সড় চক্র ফাঁস। ঘটনার তদন্তে নেমে এখনও পর্যন্ত দুজনকে গ্রেফতার করল পুলিশ।

সাইবার সিটিতে রমরমিয়ে চলছিল সেক্স ব়্যাকেটের কারবার৷ বিউটি পার্লারের মালিক ওরফে ধৃত দুই ব্যক্তিই এই কারবারে যুক্ত ছিল৷ জেনি এবং সিরাজুদ্দিন দুই ব্যক্তিও এই ঘটনার সঙ্গে যুক্ত ছিল৷ শুধুমাত্র মধুচক্রই নয়৷ এর পাশাপাশি চলত মানব পাচারের কাজ, এমনটাই অভিযোগ অনেকের৷ অভিযোগ, নানারকম কাজ দেওয়ার লোভ দেখিয়ে এখানে নিয়ে আসা হত যুবতীদের৷ এরপর তাদেরকে বাধ্য করা হত দেহ ব্যবসায় নামতে৷

জানা গিয়েছে, গোপন সূত্রে খবর পেয়ে পুলিশ তল্লাশি অভিযান চালায় এখানে৷ এরপরই সেক্স ব়্যাকেটের জাল থেকে নয়জন যুবতীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ৷ এই সমস্ত যুবতীদের মধ্যে তিনজন ছিল নাগাল্যান্ড ও থাইল্যান্ডের, একজন ছিল অসমের এবং বেঙ্গালুরু শহরের ছিল একজন৷ সদাশিবনগর পুলিশ স্টেশন এবং পরপান্না আগ্রাহর পুলিশ স্টেশন থেকে অভিযান চালিয়ে শিবাই থাই স্পা এবং লোটাস ক্লাসিক স্পা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে চারজনকে৷ এছাড়াও উদ্ধার হয়েছে নগদ প্রায় ২লক্ষ টাকা এবং ১৪টি মোবাইল ফোন৷

Advertisement ---
---
-----