বালুরঘাট: আগের মত জনসমর্থন পেতে হলে আম আদমি পার্টির পন্থা অবলম্বন করুন। মানুষের সাথে কথা বলুন। তাদের সুখ দু:খ নিয়ে আলোচনা করুন। যা দিল্লির নির্বাচনের আগে আপ নেতাকর্মীরা সাধারণ মানুষের সাথে করেছিলেন। দিল্লির নির্বাচনের ফলাফলে আম আদমি পার্টি আমাদের সকলকে চোখে আঙ্গুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে মানুষের মন জয় ও আস্থা অর্জন করতে হলে মুখ ঘুরিয়ে না রেখে তাদের সাথে আলোচনা চালিয়ে যেতে হবে। দলের ৬তম দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা সম্মেলনে হাজির হয়ে কর্মীদের এই ভাষাতেই আপ-এর জনসংযোগ নীতিকে অনুসরণ করার নির্দেশ দিলেন আরএসপি’র রাজ্য সম্পাদক ক্ষিতি গোস্বামী। বালুরঘাট নাট্যমন্দিরে দুই দিনের জেলা সম্মেলনে কর্মীদের উদ্দেশ্যে শরিক দলের নেতা হয়েও বামফ্রন্ট সম্পর্কে সমালোচনা করতে পিছু পা হননি তিনি। বামেদের সমালোচনায় তিনি অকপটে স্বীকার করে বলেন, সাধারণ মানুষ এখনও তাদের উপর ভরসা করতে পারছেন না। বামেরা যে অন্যায় করে গিয়েছে তাতে সাধারণ মানুষ এখনো বামপন্থীদের ক্ষমা করেননি। বিশেষ করে নতুন ছাত্রছাত্রীরা বামপন্থার কথা শুনলেই দশ হাত দুরে চলে যাচ্ছে। যেকারণে যাদবপুর সহ বিভিন্ন ইউনিভার্সিটিতে যে আন্দোলন চলছে তাতে বামেদের কাছে ঘেষতে দিচ্ছে না ছাত্রছাত্রীরা।
এহেন অবস্থায় কর্মীদের মনোবল চাঙ্গা করতে আরএসপি’র রাজ্য সম্পাদক বালুরঘাটে বলেন, মানুষের থেকে মুখ ফিরিয়ে রাখলে চলবে না। জনসমর্থনকে আগের পর্যায়ে নিয়ে যেতে হলে আম আদমি পার্টির নীতিকেই অনুসরণ করতে হবে। সাধারণ মানুষের সাথে শুধু আলোচনা আর আলোচনা চালিয়ে যেতে হবে। তাহলেই তাদের সাথে একটা সম্পর্ক গড়ে উঠবে। তিনি একথাও বলেন যে বিজেপির মত ফেসবুক টুইটারের মত হাইটেকনোলজির প্রচার চালানোর ক্ষমতা আপের ছিলনা। কিন্তু তা সত্বেও শুধুমাত্র সাধারণ মানুষের সাথে আলোচনার মাধ্যমে সৃষ্ট সম্পর্কের জোরেই দিল্লি নির্বাচনে ব্যাপক সাফল্য অর্জন করেছে আম আদমী।

--
----
--