ওয়াশিংটন: এবার রাশিয়ার বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। সম্প্রতি ব্রিটেনে প্রাক্তন রুশ গুপ্তচরকে নার্ভ গ্যাস দিয়ে হত্যার চেষ্টার ঘটনা সামনে আসে। এরপরই গোয়েন্দা তকমা দিয়ে ৬০ জন রুশ কূটনীতিককে আমেরিকা থেকে বরখাস্ত করল ট্রাম্প প্রশাসন ৷

এমনকি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে সিয়াটেলের রুশ দূতাবাস ৷ শুধু মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রেই নয়, ইউরোপীয় ইউনিয়নের ১৪টি দেশও সোমবার রাশিয়ার কূটনীতিকদের বরখাস্তের কথা ঘোষণা করেছে বলে খবর। মোট শতাধিক রাশিয়ান কূটনীতিককে বরখাস্ত করা হয়েছে।

ওই কূটনীতিকরা দীর্ঘদিন ধরেই ট্রাম্প প্রশাসনের উপর নজরদারি চালাচ্ছিল বলে খবর ৷ সাতদিনের সময়সীমা দেওয়া হয়েছে ওই কূটনীতিকদের ৷ আমেরিকার এই সিদ্ধান্তের পরই ইউরোপীয় ইউনিয়নের বহু দেশ তাদের দেশ থেকে রুশ কূটনীতিকদের বহিষ্কার করছে। সব মিলিয়ে বহিষ্কৃত হওয়ার সংখ্যাটা প্রায় ১০০ ছুঁয়েছে।

গত সপ্তাহে প্রাক্তন রুশ গুপ্তচর ৬৬ বছরের স্ক্রিপাল ও তাঁর ৩৩ বছরের কন্যা ইউলিয়ার ওপর নার্ভ গ্যাসের হামলা হয় ব্রিটেনে। দুজনই সঙ্কটজনক অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। এই হামলার জন্য রাশিয়াকে দায়ী করে ব্রিটেন ইতিমধ্যেই সেদেশে নিযুক্ত ২৩ জন রুশ কূটনীতিককে বহিষ্কার করেছে।

----
--