‘সেনাকে পূর্ণ স্বাধীনতা’, ফের একবার জবাব দেওয়ার ইঙ্গিত দিলেন মোদী

মুম্বই: জঙ্গিরা যেখানেই লুকিয়ে থাকুক না কেন, তাদের শাস্তি হবেই। ফের একবার এমনই বার্তা দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

শনিবার মহারাষ্ট্রের ইয়াবাতমালে গিয়ে ফের একবার হামলাকারীদের বার্তা দিলেন নরেন্দ্র মোদী। শুক্রবারের মতই এদিনও বললেন, নিরাপত্তা বাহিনীকে পূর্ণ স্বাধীনতা দেওয়া হয়েছে। পুলওয়ামায় ভয়াবহ হামলার পর এই নিয়ে তৃতীয়বার প্রত্যাঘাতের সুর চড়ালেন প্রধানমন্ত্রী।

এদিন মহারাষ্ট্রে গিয়ে তিনি বলেন, ‘এই রাজ্যের দুই সন্তান আছে শহিদের তালিকায়। পুলওয়ামার ঘটনার পর প্রত্যেকেই যন্ত্রণাটা অনুভব করতে পারছি। শহিদদের আত্মত্যাগ ব্যর্থ হবে না।’

- Advertisement -

আরও পড়ুন: পুলওয়ামা হামলা: সর্বদলীয় বৈঠক ডাকল মোদী সরকার

শুক্রবারও একই কথা বলেন মোদী। একটি অনুষ্ঠানে গিয়ে বলেন, ‘‘সন্ত্রাসবাদ দমনে ভারতীয় সেনাকে পুরো স্বাধীনতা দেওয়া হল৷ কী কায়দায় জবাব দেওয়া হবে তা ঠিক করবে নিরাপত্তা বাহিনী৷’’

পাশাপাশি মোদী পুলওয়ামার হামলাকারীদের সতর্ক করে দেন৷ বদলার সুরে জানান, হামলাকারীরা বড় ভুল করেছে৷ এর চরম মূল্য তাদের চোকাতে হবে৷ মোদী বলেন, ‘‘জঙ্গি ও তাদের মদতদাতাদের বলতে চাই তারা বড় ভুল করেছে৷ এর চরম মূল্য চোকাতে হবে৷ এই হামলার জন্য যাদের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তাদের পাশে আছে সরকার৷ তারা বিচার পাবে৷’’

ফাইল ছবি৷

ভয়াবহ জঙ্গি হামলার কিছুক্ষণের মধ্যেই ট্যুইট করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি ট্যুইটে লেখেন, ‘পুলওয়ামায় সিআরপিএফের উওর হামলা নিন্দনীয়। আমাদের সাহসী জওয়ানদের এই বলিদান ব্যর্থ হবে না। শহিদ পরিবারের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে দাঁড়াবে গোটা দেশ।’ আহত জওয়ানদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করেছেন তিনি।

আরও পড়ুন: যে কোনও সময়ে পাকিস্তানে বড় প্রত্যাঘাত! গোপন বৈঠকে মোদী

অন্যদিকে, জঙ্গি হামলার বদলা নেওয়ার ইঙ্গিত দিয়েছেন অর্থমন্ত্রীও। তিনিও তাঁর ট্যুইটে লিখেছেন, জঙ্গিদের উচিৎ শিক্ষা দেওয়া হবে। তাদের এই হামলার জন্য এমন শিক্ষা দেওয়া হবে, যা তারা ভুলতে পারবে না। একইসঙ্গে ঘটনার তীব্র নিন্দা করেছেন তিনি। শহিদ জওয়ানদের পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর বার্তাও দিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে কাশ্মীরের অবন্তীপুরায় সিআরপিএফ কনভয়কে লক্ষ্য করে হামলা হয়। মৃত্যু হয়েছে ৪০ জন সিআরপিএফ জওয়ানের। হামলার দায় স্বীকার করেছে পাক জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই-মহম্মদ।