চণ্ডীগড়: আইপিএল-কে বাঁচিয়ে দিয়েছেন সেহওয়াগ৷ এমনটাই দাবি টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন ওপেনারের৷ যদিও বীরুর আগেই তাঁর হয়ে এমন দাবি তুলেছিলেন ক্রিস গেইল৷ যার সমর্থন মিলেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়৷ সাধারণ ক্রিকেটপ্রেমীরা, বিশেষ করে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের সমর্থকরাও সহমত পোষণ করেছেন গেইল ও নজফগড়ের নবাবের সঙ্গে৷

বৃহস্পতিবার মোহালিতে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে ৬৩ বলে ১০৪ রানের বিধ্বংসী ইনিংস খেলেন ‘ইউনিভার্স বস’৷ কার্যত গেইলের এমন ইনিংসই হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে ১৫ রানে জয় এনে দেয় কিংস ইলেভেন পঞ্জাবকে৷ ম্যাচের সেরা গেইল পুরস্কার বিতরণী মঞ্চেই দাবি করেন যে, তাঁকে দলে নিয়ে বীরেন্দ্র সেহওয়াগ আইপিএলকে বাঁচিয়ে দিয়েছেন৷

আরও পড়ুন: বাইশ গজে এবার ১০০ বলের ইনিংস

গেইল তাঁর ফিটনেস ও এমন ধ্বংসাত্মক ফর্মে ফেরার পিছনেও কৃতিত্ব দিয়েছেন বীরুকে৷ যোগা প্রশিক্ষক ও ম্যাসিওরের সঙ্গে তাঁকে সারাক্ষণ জুড়ে থাকতে বলেছিলেন সেহওয়াগ৷ ফিটনেসে এমন উন্নতির জন্য এই দু’টি বিষয়কে অন্যতম কারণ বলে উল্লেখ করেছেন গেইল৷

ক্রিস গেইলের কথায় সুর মিলিয়ে ম্যাচের শেষে সেহওয়াগ টুইট করেন, ‘গেইলকে দলে নিয়ে আমি আইপিএলকে বাঁচিয়ে দিয়েছি৷’ পাল্টা টুইটে গেইল লেখেন ‘ইয়েস’৷আসলে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গোলার এবার ক্রিস গেইলকে ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়৷ গেইলের দিক থেকে মুখ ফিরিয়ে তরুণ সরফরাজ খানকে রিটেন করে আরসিবি৷ এমনকি নিলামে রাইট টু ম্যাচ কার্ডেও ক্যারিবিয়ান দৈত্যকে দলে রাখতে রাজি হয়নি ব্যঙ্গালোর ফ্র্যাঞ্চাইজি৷

আরও পড়ুন: মোদীর ভবিষ্যদ্বাণীতে বিরাটরা পাবেন ম্যাচ পিছু ১০ লক্ষ ডলার

প্রথম দফার নিলামে আট ফ্র্যাঞ্চাইজির কেউই গেইলকে দলে নেয়নি৷ দ্বিতীয় দফায় ডিরেক্টর অফ ক্রিকেট অপারেশন বীরেন্দ্র সেহওয়াগের পরামর্শ মতোই কিংস ইলেভেন পঞ্জাব কিনে নেয় তাঁকে৷ পরে সাংবাদিক সম্মেলনে সেহওয়াগ জানিয়েছিলেন, গেইল তাদের অন্তত দু’টি ম্যাচেও জেতালে পয়সা উসুল হয়ে যাবে৷

কিংস ইলেভেন একাদশ আইপিএলে তাদের প্রথম দু’টি ম্যাচে মাঠে নামায়নি গেইলকে৷ পরের দু’টি ম্যাচে সুযোগ পেয়েই পঞ্জাবকে কার্যত একার হাতে জিতিয়েছেন তিনি৷ দু’টিতেই ম্যাচের সেরার পুরস্কার পেয়েছেন গেইল৷ বৃহস্পতিবার আইপিএলে নিজের ষষ্ঠ ও সব মিলিয়ে টি-২০ ক্রিকেটে ২১ তম সেঞ্চুরি করার পর গেইল ও বীরু আইপিএলকে রক্ষা করার কথা বলেন৷ আসলে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের জৌলুস ফেরানোর দিকেই ইঙ্গিত করেছেন সেহওয়াগরা৷

আরও পড়ুন: গেইলের ব্যাটে অস্তমিত ‘চারমিনারের সূর্য’

বীরুর টুইটের প্রত্যুত্তরে আরসিবি সমর্থকরা ব্যাঙ্গালোর ফ্র্যাঞ্চাইজির গেইলের রিটেন না করার সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেন৷ বেশিরভাগের মত, গেইলকে ধরে না রেখে ভুল করেছে আরসিবি৷ এখন তাঁকে দলে নিয়ে সুফল পাচ্ছে পঞ্জাব৷

--
----
--