মধুচক্রের পর্দা ফাঁস: তৃণমূল নেতার বাড়ি থেকে গ্রেফতার ১৬ যুবতী

ফাইল ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, কৃষ্ণনগর: রাজ্যের শাসকদলের নেতার বাড়িতে বড়সড় মধুচক্রের আসর ভাঙল পুলিশ৷নদীয়ার গয়েসপুরের একটি বাড়িতে হানা দিয়ে পুলিশ এই মধুচক্রের হদিশ পায়। রীতিমতো উত্তেজনার মুহূর্তে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ১৬ জন সুন্দরী মহিলাসহ ১৮ জনকে গ্রেপ্তার করে। ধৃতদের শনিবার কল্যাণী আদালতে তোলা হয়। তাদের বিরুদ্ধে অবৈধ যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হওয়ার ধারা দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: শরীর চর্চার আড়ালে শহরে সেক্স ব়্যাকেটের পর্দাফাঁস করল পুলিশ

স্থানীয় এবং জেলা পুলিশ সুত্রে জানা গিয়েছে, গয়েশপুর পুরসভার অধীন এফ ১২ নম্বর বাড়িটির দখল নিয়ে স্হানীয় এক তৃণমূল নেতা এই মধুচক্র চালাতেন বলে অভিযোগ উঠেছে। তবে, ধৃতরা সকলেই বহিরাগত। জানা গিয়েছে বেশ কিছুদিন ধরে ওই বাড়িটিতে অসামাজিক কার্যকলাপ চলছিল। এটা পুলিশ জানতে পেরেই অভিযান চালায়।

- Advertisement -

শুক্রবার রাতে বিশাল পুলিশ বাহিনী ওই বাড়িতে হানা দেয়। সূত্রের খবর, সুুপ্রকাশ বিশ্বাস নামে জনৈক ব্যক্তি ওই বাড়ির মালিক। কিন্তু, গয়েশপুর শহর তৃণমৃল কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক সৌমেন সিংহ রায় বাড়িটি দখল করে থাকেন। তিনি থাকেন দোতলায়। একতলায় চালানো হয় মধুচক্র। পুলিশ সেখান থেকে যেসব মহিলাকে গ্রেপ্তার করেছে তাদের অধিকাংশই বিভিন্ন ড্যান্স বারে কাজ করে।

আরও পড়ুন: চার্চের ভিতরেই রমরমিয়ে চলছে সেক্স ব়্যাকেটের ব্যবসা

এদিকে মধুচক্রের সঙ্গে দলের এক নেতার নাম জড়িয়ে পড়ায় চরম অস্বস্তিতে পড়েছে শাসক দলের অন্য নেতারা। গয়েশপুর শহর তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি এবং পুরসভার চেয়ারম্যান মরণকুমার দে জানান, সৌমেনকে ফাঁসানো হয়েছে। ও তো ওই বাড়ির একজন ভাড়াটে। তবে, দলের কেউ জড়িত থাকার প্রমান পাওয়া গেলে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরও পড়ুন: পত্রমিতালির আড়ালে কলকাতায় রমরমা সেক্স র‍্যাকেট!

Advertisement ---
---
-----