সোমবারেই আদালতে পালটা চ্যালেঞ্জ করবেন শরিফ

ইসলামাবাদ: সোমবার নিজেদের পক্ষে আদালতে আপিল করবেন শরিফ-মরিম৷ NAB-র রায়ের বিরুদ্ধে আদালতে আপিল করবেন তাঁরা৷ তারপরই শুরু হবে বিচার প্রক্রিয়া৷ আপাতত রাওলপিন্ডির আদিয়ালা জেলে বন্দি শরিফ-মরিয়ম৷

আরও পড়ুন- দেশে ফিরে আরও দুই মামলা শরিফের বিরুদ্ধে

শনি ও রবিবার আদালতের কাজ বন্ধ থাকায় সোমবার রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে আপিল করতে পারবেন তাঁরা৷ শুক্রবার রাতেই আদিয়ালা জেলে শরিফের সঙ্গে দেখা করতে যান তাঁর আইনজীবী৷ জেলে বসেই আইনি সমস্ত কাগজপত্র সই করনে শরিফ ও কন্যা মরিয়ম৷

- Advertisement -

অন্যদিকে, দুর্নীতি মামলা আগেই ছিল, এবার নওয়াজ ও তাঁর পরিবারের বিরুদ্ধে আরও ২টি মামলা দায়ের হল৷ জেলে এক রাত কাটতে না কাটতেই ২টি মামলার মুখে পড়লেন নওয়াজ, মরিয়ম৷ পাকিস্তানের দুর্নীতি দমন শাখা NAB-র দুটি মামলায় ট্রায়ালের মুখে পড়তে পারেন নওয়াজের পরিবার৷ NAB সূত্রে খবর, জেলে বসেই এই ট্রায়ালে পড়বেন নওয়াজ শরিফ৷

এর আগেই ২টি আর্থিক দুর্নীতির মামলা নওয়াজ শরিফ ও তাঁর মেয়ে মরিয়মের বিরুদ্ধে ছিল৷ দুর্নীতি মামলায় শরিফের ১০ বছর, মেয়ে মরিয়মকে ৭ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে৷ এবার আরও ২টি দুর্নীতি মামলায় নাম এল নওয়াজের ২ পুত্র হুসেইন ও হাসানের৷ দুজনেই ব্রিটেনের বাসিন্দা৷

প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর শ্যালক ক্যাপ্টেন অবসরপ্রাপ্ত সফদারকেও দুর্নীতির অভিযোগে এক বছরের কারদণ্ড সজা শোনানো হয়েছে৷ গোট পরিবারের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের ট্রায়াল জেলে বসেই সম্মুখীন হবেন নওয়াজ৷ এছাড়া নওয়াজকে ৮০ লাখ এবং মরিয়মকে ২০ লাখ ব্রিটিশ পাউন্ড জরিমানা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে আদালত৷

ভোটের মুখে দেশে বন্দি নওয়াজ শরিফ৷ তবে, ভাঁটা পড়েনি তাঁর প্রচারে৷ নির্বাচনের আগে পাকিস্তানে প্রচার তুঙ্গে৷ বাদ নেই নওয়াজের পাকিস্তান মুসলিম লীগ- নওয়াজ দল৷  নওয়াজ শরিফের সমর্থমনে চলছে প্রচার৷

দলের প্রেসিডেন্ট সাহাবাজ শরিফ প্রচার চালাচ্ছেন৷ তিনি জানান, দেশে ফিরে নিজের সততা প্রমাণ করেছেন নওয়াজ শরিফ৷ এবার তাঁকে ভোট দেওয়া ভোটারদের দায়িত্ব৷ যে সাহসের সঙ্গে নওয়াজ-মরিয়ম দেশে ফিরে গ্রেফতার হয়েছেন, ২৫ জুলাই ঠিক সেই সাহস দেখিয়েই দেশবাসী তাঁদের ভোট দিক৷ পাকিস্তানের উজ্জ্বল ভবিষ্যতের জন্যই দেশে ফিরেছেন নওয়াজ শরিফ বলে মনে করেন তিনি৷ শুক্রবার নওয়াজ শরিফ দেশে ফেরার পর লাহোর বিমানবন্দরে দলীয় নেতা, কর্মীদের নিয়ে বিরাট সমাবেশ করেন সাহাবাজ৷

সেদিনই নওয়াজের হয়ে আনুষ্ঠানিক ভোট প্রচার শুরু হয়৷ অবশ্য, বিরোধী নেতা ইমরান খান নওয়াজকে লুঠ করা টাকা ফেরত দেওয়ার দাবি জানান৷ তিনি বলেন, ‘দেশের টাকা লুঠ করেছেন, সেই টাকা ফেরত দিক নওয়াজ শরিফ’৷ পার ভোটের আগেই তাই নওয়াজ শরিফের প্রচার ও সমলোচনা সমান তালেই জারি৷

Advertisement
---