গম্ভীরকে দলের বাইরে রাখা নিয়ে মুখ খুললেন শ্রেয়স

নয়াদিল্লি: নাইটদের বিরুদ্ধে ম্যাচের দু’দিন আগে নেতৃত্ব ছেড়েছিলেন৷ দীনেশদের বিরুদ্ধে ম্যাচে তিনি থাকবেন কিনা সেই নিয়েও ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছিল৷ আশঙ্কা সত্যি হল টস টাইমে, যখন দিল্লির সিংহাসনে অভিষিক্ত নতুন কাপ্তান শ্রেয়স জানিয়ে দিলেন নাইট ম্যাচে দলে নেই গম্ভীর৷ এরপরই একাধিক প্রশ্ন ডানা বাঁধতে শুরু করে৷ তবে কি নতুন কাপ্তানের নির্দেশের সরিয়ে দেওয়া হল গম্ভীরকে? নাকি টিম গঠনের গুরু দায়িত্ব যাঁর কাঁধে সেই রিকি পন্টিংই গম্ভীরকে ছেঁটে ফেললেন৷

নাইটদের বিরুদ্ধে ৫৫ রানে ম্যাচ জিতে সব প্রশ্নের উত্তর দিলেন শ্রেয়স আইয়ার৷ দিল্লির মসনদের ভারপ্রাক্ত নয়া অধিনায়ক বলেন, ‘সত্যি বলতে আমি গম্ভীরকে দলের বাইরে রাখার মতো কঠিন সিদ্ধান্ত নিইনি৷ দলের বাইরে থাকার সিদ্ধান্তটা এতান্তই গম্ভীরের ব্যক্তিগত৷ আমি ওর সাহসী সিদ্ধান্তকে শ্রদ্ধা করি৷ অধিনায়ক হিসেবে সাফল্য না পাওয়াতেই গম্ভীর নিজেকে সরিয়ে নিল৷ গম্ভীরের এই সিদ্ধান্ত দারুণ একটা দৃষ্টান্ত তৈরি করল৷’

কেকেআরের বিরুদ্ধে ম্যাচ জিতে নিজের মারকাটারি ব্যাটিংয়ের (৪০ বলে ৯৩ রান) রহস্যও ফাঁস করেন শ্রেয়স৷ ২৩ বছরের উঠতি ক্রিকেটার বলেন, ‘নারিনকে নিয়ে আলাদা প্ল্যানিং ছিল৷ ওর বেশিরভাগ ডেলিভারি এখন অফ স্পিন হয়, সেই মতো ওর বিরুদ্ধে পরিকল্পনা করেছিলাম৷ অন্যদিকে ঘরোয়া ক্রিকেটে কুলদীপ,পীযূষকে খেলার অভিজ্ঞতা থেকেই ওদের সামলেছি৷’ অধিনায়ক হিসেবে প্রথম ম্যাচ জয় প্রসঙ্গে শ্রেয়স জানান, ‘ শুরুতে মুনরোর দুর্দান্ত ব্যাটিং ভিত গড়ে দেয়৷ দলের প্রত্যেকে নিজের নিজের কাজটা করে গিয়েছে, শেষ ওভারের ২৯রান বড়ো টার্গেট তুলতে সাহায্য করেছে৷ সবমিলিয়ে দলগতভাবে সব বিভাগে ভাল খেলেই আমরা নাইটদের হারিয়েছি৷’

Advertisement ---
---
-----