ফের বিতর্কিত পোস্ট সোফিয়ার

মুম্বই: দিনকয়েক ধরে পেজ থ্রি জুড়ে রয়েছেন ব্রিটিশ মডেল, অভিনেত্রী সোফিয়া হায়াত৷ স্বামী ভ্লাদ স্ট্যানেসকিউ-এর ছাড়াছাড়ির জেরেই ইদানিং খবরের শিরোনামে উঠে এসেছেন তিনি৷ এবার সেই ঘটনায় উঠে এল এক চাঞ্চল্যকর তথ্য৷

সম্প্রতি সোফিয়া সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করে সোফিয়া জানিয়ে দিয়েছিলেন তাঁর স্বামী একজন প্রতারক এবং মিথ্যুক৷ এবং সাংবাদিকদের সাক্ষাৎকারে এও জানান যে স্বামীকে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছেন তিনি৷ খবরটি ছড়িয়ে পড়তেই এক মহিলা তাঁকে মেসেজ করেন এং তিনিও জানান যে তাঁর সঙ্গে প্রতারণা করেছেন ভ্লাড৷

আরও পড়ুন: প্রিয় বান্ধবীর প্রাক্তনের বিয়েতে মশগুল নুসরত!

- Advertisement -

মঙ্গলবার সেই মেসেজের স্ক্রিনসট সাইবারবাসীদের কাছে শেয়ার করেন সোফিয়া৷ একটি সাক্ষাৎকারে অভিনেত্রী জানান, “ওই মহিলার সঙ্গে দুবছর আগে লন্ডনে সাক্ষাৎ হয় ভ্লাদের৷ সেখান থেকই দুজনের মধ্যে সম্পর্কে শুরু হয়৷ এমনকি তাঁরা একসঙ্গে বেশকিছু মাস লন্ডনেও থাকে৷ এরপর হঠাৎ তাঁর অনুপস্থিতিতে ভ্লাড বাড়ি থেকে একাধিক দামী জিনিস চুরি করে নিয়ে পালায়৷ ঘটনাটির পর ফোন নাম্বার পাল্টে ফেলে ভ্লাদ এবং সোশ্যাল মিডিয়া থেকে ব্লক করে তাঁকে৷ এই পুরো বিষয়টি আমায় ওই মহিলা ইনস্টাতে মেসেজ করে জানায় যেটা আমি শেয়ার করি৷”

আরও পড়ুন: সেরার তালিকায় এবার দুই বঙ্গ-ললনা

ভ্লাদের যে চুরি স্বভাবটি আছে সেটা আগে থেকেই জানতে পেরেছিলেন সোফিয়া৷ তাঁর পার্স থেকে লুকিয়ে টাকাও সড়াতো তাঁর স্বামী৷ এরপর বেশকিছুদিন আগে তাঁর বিজনেসের কাগজপত্র হাতাতে গিয়ে হাতেনাতে ধরা পড়ে ভ্লাড৷ যার জন্যই তাঁকে বাড়ি থেকে বের করে দেন টিনসেল টাউনের এই সুন্দরী৷ তবে বিষয়টি নিয়ে এই মুহুর্তে কোন আইনি পদক্ষেপ নেননি তিনি৷

Advertisement ---
---
-----