অভিনেত্রীকে মৃত্যুর হুমকিতে হইচই পড়ে গেল ফেসবুকে

সাত সমুদ্র পারে জ্বলে ওঠা আগুনের স্ফুলিঙ্গ দাবানলের আকার নিয়েছিল। হলিউড পেরিয়ে সেই আগুনে আজও জ্বলছে টলিউডি পরিচালক-প্রযোজকরা। মাস কয়েক আগে ঊর্ধ্বাঙ্গ অনাবৃত করে কাস্টিং কাউচের বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে প্রতিবাদ করেছিলেন তেলুগু অভিনেত্রী শ্রী রেড্ডি। সম্প্রতি তিনি অভিযোগ করেছেন, কাস্টিং কাউচ নিয়ে প্রকাশ্যে কথা বলায় নাকি তাঁকে হুমকি দিচ্ছেন ইন্ডাস্ট্রির বেশ কিছু প্রভাবশালী মানুষ। এই বিষয়ে তিনি প্রকাশ্যে এনেছেন বিশাল রেড্ডির নাম।

নিজের ফেসবুক ওয়ালে অভিনেত্রী লিখেছেন, “তামিল অভিনেতা বিশাল রেড্ডি আমাকে হুমকি দিচ্ছে। কিন্তু আমি কলিউড ইন্ডাস্ট্রির কালো দিকটা সামনে আনতে চাই।’ তামিল ফিল্ম প্রোডিউসার কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট বিশাল। ফলে তিনি ইন্ডাস্ট্রির প্রভাবশালী ব্যক্তি বলেই দাবি শ্রীর। সেবার যখন শ্রী রেড্ডি মুখ খুলেছিলেন তখন অভিনেত্রীর বিরোধিতা করে বিশাল বলেছিলেন, “কোনও প্রমাণ ছাড়া কারও নাম প্রকাশ্যে এভাবে বলতে পারেন না উনি। এতে তো মনে হচ্ছে, একে একে নিজের টার্গেটদের নাম বলছেন উনি। কে জানে, কোনও দিন হয়তো আমার নামও বলতে পারে।”

- Advertisement -

এমন মন্তব্যের মাস তিনেক পরেই শ্রী-এর মুখে বিশালের নাম! তাতেই উঠছে নানান কথা। প্রশ্ন উঠছে অভিনেত্রী অভিযোগের সত্যতা নিয়েও।

প্রসঙ্গত শ্রী-এর পর একের পর এক নিজেদের সঙ্গে হওয়া যৌন হেনস্থার বিরুদ্ধে মুখ খুলছেন তেলেগু অভিনেত্রীরা। সন্ধ্যা নাইডু তেলুগু ছবির দুনিয়ার জনপ্রিয় নাম। দীর্ঘ ১০ বছর ধরে তেলুগু ছবিতে কাজ করছেন তিনি। এই অভিনেত্রী বলেন, ” বয়সের কারণে এখন তাঁর তাঁর কাছে মা বা মাসির চরিত্রে অভিনয়েরই সিংহভাগ অফার আসে। সকালে শ্যুটিংয়ের সময় তাঁকে বলা হয় আম্মা, আর রাতে বলা হয় শুতে। “এখানেই শেষ নয়! তিনি আরও জানান, ” একদিন একজন আবার জিজ্ঞাসা করেছিল, তিনি ভেতরে কী পরে আছেন? তা স্বচ্ছ কিনা?

তবে শুধু সন্ধ্যা নাইডু নয়! সুনীতা রেড্ডি নামে আর এক অভিনেত্রীর কথায়, “জোর করে সকলের সামনে পোশাক পাল্টাতে বাধ্য করা হয় তাঁদের! এমনকী প্রাকৃতিক প্রয়োজনও মেটাতে হয় পাঁচজনের সামনে।”
এই সম্পর্কে সুনীতার অভিযোগ, “ম্যানেজাররা বলে, তারকা নায়ক নায়িকাদের মেকআপ ভ্যান ব্যবহার করতে। কিন্তু সেখানে তাঁদের ঢুকতে দেওয়া হয় না! ব্যবহার করা হয় পোকামাকড়ের মত। ওখানে গেলে নায়ক-নায়িকারা প্রচণ্ড দুর্ব্যবহার করেন! মুখের ওপর বলে দেন, যেন তাঁদের ভ্যানের আশপাশে ঘোরাফেরা না করা হয়”

উল্লেখ্য , শ্রী রেড্ডি এর আগে নিজের সোশ্যাল মিডিয়া পেজে অভিযোগ করেন, তেলুগু ছবির কয়েকজন নামী প্রযোজক, পরিচালক ও অভিনেতা তাঁকে যৌন হেনস্থা করেছেন। যাঁরা উঠতি অভিনেত্রীদের থেকে এ ধরনের অন্যায় সুবিধে নেন তাঁদের নাম ফাঁস করে দেওয়ার হুমকিও দেন তিনি।

Advertisement ---
---
-----