থালা বাজিয়ে অভিনব প্রতিবাদ হবু শিক্ষকদের

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: কখনও প্রতিবাদ মিছিল৷ কখনও অবস্থান বিক্ষোভ বা কর্তৃপক্ষের হাতে স্মারকলিপি তুলে দেওয়া৷ বিভিন্ন সময়ে নিজেদের দাবি দাওয়া তুলে ধরতে এই ধরনের প্রতিবাদ করে থাকেন চাকুরিপ্রার্থীরা৷ এবার অভিনব উপায়ে প্রতিবাদ জানালেন হবু শিক্ষকরা৷ বুধবার আচার্য সদন থেকে থালা বাজিয়ে বিকাশ ভবন অভিযান করলেন তাঁরা৷ নিয়োগ সংক্রান্ত মোট ছয় দফা দাবি নিয়ে এই মিছিলে সামিল হয়েছিলেন প্রায় পাঁচশো এসএসসি চাকুরিপ্রার্থী৷

বুধবার ছয় দফা দাবি নিয়ে এসএসসি যুব ছাত্র অধিকার মঞ্চের তরফ থেকে বিকাশ ভবন অভিযানের ডাক দেওয়া হয়৷ ৬ দাবির মধ্যে ছিল আপ টু ডেট শূন্য পদ বাড়িয়ে ওয়েটিং ক্যান্ডিডেটদের প্যানেল ভুক্ত করতে হবে, একাদশ ও দ্বাদশ শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগের জন্য প্যানেল ভুক্ত ও ওয়েটিং-দের কাউন্সেলিং সম্পূর্ণ করার পর নবম ও দশমের এমপ্যানেলড ও ওয়েটিংদের কাউন্সেলিং প্রক্রিয়া শুরু করতে হবে৷ শূন্যপদ পূরণ না হওয়া পর্যন্ত কাউন্সেলিং প্রক্রিয়া চালিয়ে যেতে হবে৷

- Advertisement -

স্বচ্ছভাবে নিয়োগের জন্য কাউন্সেলিং প্রক্রিয়াকে প্রকাশ্যে রাখার দাবিও তোলা হয় এদিনের মিছিলে৷ এ ছাড়া, আরও যে দাবিগুলি তোলা হয় সেগুলি হল, প্রতিটি কাউন্সেলিং-এর রিপোর্ট ওয়েবসাইটে দিতে হবে৷ কাউন্সেলিংয়ের দিন প্রার্থীরা অনুপস্থিত থাকলে তাদের জন্য পরবর্তী দিন ধার্য করতে হবে। ওএইচদের পূর্ব ঘোষিত সিট ফিরিয়ে দিতে হবে ও তাদের প্রাপ্য ১ শতাংশ সংরক্ষণ দিতে হবে৷

এই ছয় দফা দাবি নিয়ে যুব ছাত্র অধিকার মঞ্চের ডাকে প্রথমে আচার্য সদন থেকে করুণাময়ীতে আসেন হবু শিক্ষকরা৷ সেখানে জমায়েত করেন তাঁরা৷ জমায়েতের ফলে যানজটের সৃষ্টি হয়৷ তারপর বিকাশ ভবনের উদ্দেশ্যে রওনা দেন চাকরিপ্রার্থীরা৷ কিন্তু, উন্নয়ণ ভবনের সামনে আসতেই ব্যারিকেড করে মিছিল আটকে দেয় পুলিশ৷ ক্ষোভে সেখানেই রাস্তার উপর বসে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন এসএসসি প্রার্থীরা৷ তাঁদের বক্তব্য, দাবি দাওয়া পূরণের লিখিত প্রতিশ্রুতি না দিলে তাঁরা রাস্তা থেকে উঠবেন না৷

বর্তমানে এসএসসি নিয়োগকে ঘিরে চলছে আইনি জটিলতা৷ গত ৬ জুলাই কাউন্সেলিং-এর বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে স্কুল সার্ভিস কমিশন৷ একাদশ ও দ্বাদশ শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগের প্রার্থী তালিকা প্রকাশের আগেই কাউন্সেলিং-এর বিজ্ঞপ্তি আইনকে লঙ্ঘন করেছে৷ এই অভিযোগে হাইকোর্টে মামলা দায়ের করেন ২০ জন চাকুরিপ্রার্থী৷ সেই মামলার রায়ে কাউন্সেলিং-এর বিজ্ঞপ্তিকে বাতিল করে প্রার্থী তালিকা প্রকাশের নির্দেশ দেন হাইকোর্টের বিচারপতি৷ তারপরই ৬ জুলাইয়ের বিজ্ঞপ্তিটিকে বাতিল বলে ঘোষণা করে এসএসসি৷

Advertisement
---