ভাঙড় আন্দোলনের নেতা অলীকের জামিন

স্টাফ রিপোর্টার, বারুইপুর: ৩৫টি মামলার মধ্যে শেষতম মামলাটিতে মঙ্গলবার জামিন পেলেন জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র ও পরিবেশ রক্ষা কমিটির মুখপাত্র অলিক চক্রবর্তী। সব কটি মামলায় জামিন পেয়েছেন অলীক৷ তাই রীতিমতো উৎসবের মেজাজে মজে রয়েছে ভাঙড়৷ প্রায় ৪৬ দিনের মাথায় ৩৫ টি মামলায় জামিন পান অলীক৷ তবে দু’মাস ধরে জেলের মধ্যেই রয়েছে আরাবুল৷

এখনও পর্যন্ত তাঁর জামিন অনিশ্চিত৷ প্রসঙ্গত, দক্ষিণ ২৪ পরগনার ভাঙড়ে গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় এক নির্দল প্রার্থীর সমর্থকের। এই প্রসঙ্গে অভিযোগের আঙুল উঠেছিল ভাঙড়ের তৃণমূল নেতা এবং প্রাক্তন বিধায়ক আরাবুল ইসলামের বিরুদ্ধে। তবে এই ঘটনা সামনে আসার সঙ্গে সঙ্গেই তৎপরতা দেখিয়েছিল রাজ্য সরকার। আরাবুলকে গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছিলেন স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রী৷ নির্দল প্রার্থীর সমর্থককে খুনের অভিযোগে পুলিশি তৎপরতায় আরাবুলকে গ্রেফতার করা হয়৷

অন্যদিকে, ভাঙড়ের জমি আন্দোলনে জড়িত রেডস্টারের নেতা অলীক চক্রবর্তীকে গ্রেফতার করে পুলিশ৷ বারুইপুর জেলা পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছিল, ওড়িশার ভুবনেশ্বর থেকে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়৷ অলীকের বিরুদ্ধে খুন-সহ একাধিক অভিযোগ ছিল৷ সেই কারণেই তাঁকে গ্রেফতারের চেষ্টায় ছিল পুলিশ৷ খবর পাওয়া যায়, চিকিৎসা করাতে ওড়িশার ভুবনেশ্বরে গিয়েছিলেন অলীক৷ তাঁর মোবাইলের টাওয়ার লোকেশন ট্র্যাক করেই হদিশ মেলে৷ তারপর ভুবনেশ্বরের কলিঙ্গ হাসপাতালের সামনে থেকে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়৷ বারুইপুর পুলিশ জেলার আধিকারিকরা ওড়িশার স্থানীয় থানার সহায়তায় তাঁকে গ্রেফতার করে৷

Advertisement
---