স্টাফ রিপোর্টার, বালুরঘাট: তৈরি হয়েছে পাম্পিং স্টেশন৷ রিজার্ভার তৈরির কাজও শেষ৷ পাইপ লাইন পাতা হয়ে গিয়েছে বহুদিন আগেই৷ যত্ন করে নীল-সাদা রঙও চাপানো হয়েছে প্রকল্প এলাকায়৷ কোটি কোটি টাকা খরচ করে প্রকল্পের কাজ শেষ হলেও শুধু মাত্র ঠিকাদারের অভাবে বিশুদ্ধ পানীয় জল থেকে বঞ্চিত হয়ে রয়েছেন দক্ষিণ দিনাজপুরের বালুরঘাট শহরের বাসিন্দারা৷

মাস কয়েক আগে বাড়ি বাড়ি জল প্রকল্পের পাইপ লাইলেন কাজ সম্পন্ন হয়েছে৷ কিন্তু যোগ্যতা সম্পন্ন ঠিকাদার না পাওয়া যাওয়ায় বাড়িতে কানেকশন দিতে পারছে না বালুরঘাট পুরসভা৷ কেন্দ্রীয় সরকারের জওহরলাল নেহেরু আরবান মিশনের টাকায় ২০১০-১১ আর্থিক বর্ষে বালুরঘাট শহরের বাড়িতে জল পৌঁছে দেওয়ার প্রকল্পের কাজ শুরু করেছিল পুরসভা৷

আত্রেয়ী নদীর জল তুলে তা পরিস্রুত করে প্রত্যেকের বাড়িতে পৌঁছে দেওয়ার জন্য পাইপলাইন বসানো ও পাম্পিং স্টেশন তৈরির কাজ মাস তিনেক আগেই শেষ হয়েছে৷ এখন বাকি শুধু প্রত্যেকের বাড়িতে জল পৌঁছে দিতে কানেকশনের কাজ৷ কাজে ঠিকাদার নিয়ে বিপাকে পড়েছে পুরসভা কর্তৃপক্ষ৷ দুই-দুইবার টেন্ডার ডেকেও যোগ্যতা সম্পন্ন ঠিকাদার পাওয়া যাচ্ছে না৷ বাধ্য হয়েই আগামী ৩ এপ্রিল ফের টেন্ডার ডাকা হয়েছে৷ কাজ শুরুর​ দীর্ঘ এক দশক হতে চললেও জল না পৌঁছানোই ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন শহরের নাগরিকরা৷

বালুরঘাটের খিদিরপুর এলাকার বাসিন্দা অগ্নিব্রত চক্রবর্তী জানিয়েছেন, বহুদিন ধরেই শুনে আসছেন যে পুরসভার তরফে প্রত্যেকের বাড়িতে বিশুদ্ধ পানীয় জলের ব্যবস্থা করা হচ্ছে৷ এর জন্য নাগরিকদের চলাচলের ব্যাঘাত ঘটিয়ে একাধিক বার রাস্তা খুঁড়ে পাইপ লাইনের কাজও হয়েছে৷ কিন্তু এখনও পর্যন্ত সেই জল তাঁদের কারও বাড়িতেই পৌঁছল না৷ তাঁর দাবি, ঠিকাদার না পাওয়া গেলে পুরসভা বিকল্প কিছুর ব্যবস্থা করুক৷

এব্যাপারে বালুরঘাট পুরসভার চেয়ারম্যান রাজেন শীল জানিয়েছেন, বহুদিন আগেই মাটির তলায় পাইপ লাইন বসানো৷ সেই সঙ্গে রিজার্ভার ও পাম্পিং স্টেশন তৈরি সমস্ত কাজই সম্পন্ন হয়ে গিয়েছে৷ এখন বাকি শুধু রাস্তার মেইন লাইন থেকে প্রত্যেকের বাড়িতে পাইপ লাইনের কানেকশন করে দেওয়ার কাজ৷ এক্ষেত্রে সমস্যা হচ্ছে, বিশেষ এই কাজের যোগ্যতা সম্পন্ন পর্যাপ্ত ঠিকাদার পাওয়া যাচ্ছে না৷ দুই দুইবার অনলাইনে টেন্ডার ডেকেও কোরাম হয়নি৷ তৃতীয়ও বার আগামী ৩ এপ্রিল ফের টেন্ডার ডাকা হয়েছে৷ সেদিনও ঠিকাদার না পাওয়া গেলে বিকল্প কিছু ভাবতে হবে বলেও চেয়ারম্যান জানিয়েছেন৷

----
--