গর্ভবতী মহিলাদের কেন ‘সাধ’ দেওয়া হয় জানেন?

সন্তান-সম্ভবা মহিলাদের ছয় মাস সময়ে(ব্যতিক্রমও হয়) সাধ দেওয়া হয়৷ যে বিষয়টি কম বেশি সকলেই জানেন৷ গর্ভবতী মহিলাকে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে পছন্দের সব ধরনের খাবার খেতে দেওয়া হয়৷ কিন্তু জানেন কি এই সাধ পর্ব কেন পালন করা হয়? নানা জনের নান মত থাকলেও, প্রচলিত কথা চলুন জেনে নেওয়া যাক…

শাস্ত্রে নাকি বলা হয়েছে, মা বসুমতী প্রথম সাধ ভক্ষণ করেছিলেন পৌষ সংক্রান্তিতে৷ এই নিয়ম দেব-ঋষিদের সৃষ্ট বলে অনেকের মত৷ মায়েদের সাধ ভক্ষণ অর্থাৎ ভালো প্রোটিনযুক্ত খাদ্য খাওয়ানো৷ যাতে সন্তান রুগ্ন জন্মগ্রহণ না করে৷

পড়ুন: হিন্দু বিধবারা সাদা পোশাক কেন পরে জানেন?

- Advertisement -

অনেক সময় পুষ্টিকর খাদ্যের অভাবে মা এবং গরব্রে শিশু উভয়েরই মৃত্যু হত৷ আবার পুষ্টিকর খাদ্য মায়েরা না খেলে গর্ভের শিশুরও খাদ্যে টান পড়বে৷ যে দুধ পান করে শিশু বেড়ে ওঠে, শক্তি সঞ্চয় করে, দেহে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে ওঠে, তারও অভাব দেখা দেবে৷ তাই এই সমস্ত দিক বিবেচনা করে মায়েদের খাবারের ওপর জোর দেওয়া হয় বেশি করে৷

আর সেই বিষয়টি আত্মীয় স্বজনের উপস্থিতিতে একটি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ঘটে, যেদিন রুচিসম্মত সাধ ভক্ষণ করান গর্ভবতী মহিলাকে৷ একেই সাধ দেওয়া বলে৷

Advertisement ---
---
-----