শেরোয়ানি-পাগড়িতে ঘোড়ায় চেপে মণ্ডপে এল কনে

জয়পুর: সে এক অদ্ভুত ছবি৷ পরনে শেরওয়ানি, মাথায় পাগড়ি, ঘোড়ায় চেপে আসছেন- না বর নয় কনে। এমন পোশাকেই মণ্ডপে এসে হাজির হলেন তিনি। সকলে হতবাক৷ জায়গা বদল হল নাকি?

সম্প্রতি রাজস্থানে এমনই ঘটনা ঘটেছে। এক কনেকে তার বিয়ের অনুষ্ঠানে শেরয়ানি পরিহিত অবস্থায় ঘোড়া চালিয়ে আসতে দেখা যায়৷ ঘটনাটি ঘটেছে রাজস্থানের নাওয়ালগার নামে একটি জায়গায়৷ দৃশ্যটি একটু অন্যরকম হলেও, এর পিছনে রয়েছে পরিবর্তনের একটি উদ্দেশ্য৷ সমাজের একটি বড় অংশকে গ্রাস করে রেখেছে লিঙ্গ বৈষম্য৷ বহুকাল থেকে এই নিয়ম চলে আসছে৷ কিন্তু, এখন সময় বদলানোর৷ সমাজকে এবং নিজের মানসিকতাকে৷

জানা গিয়েছে, পাত্রী আই আই টি গ্র্যাজুয়েট৷ বর্তমানে তিনি ইণ্ডিয়ান অয়েলের সঙ্গে যুক্ত৷ নেহা এই পদক্ষেপের মাধ্যমে তাঁর বার্তা সকলের মধ্যে পৌঁছে দিয়েছেন৷ তাঁর সিদ্ধান্তকে পরিবারের পক্ষ থেকে সমর্থন করা হয়েছে৷ নেহা মিডিয়াকে দেওয়া ইন্টারভিউতে বলেন, ‘আমার পরিবার শিখিয়েছে ছেলে ও মেয়ের মধ্যে কখনই ভেদাভেদ করা উচিত নয় এবং দু’জনকেই সমান সুযোগ দেওয়া উচিত৷’

- Advertisement -

নেহার বোন সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘এই উদ্যোগের মাধ্যমে আমরা সমাজে পুরুষ ও মহিলা যে সমানাধিকারী সেই বার্তা জানানোর চেষ্টা করেছি৷ পাত্রের ঘোড়ায় চাপার নিয়ম, কিন্তু এখানে সেই রীতিটিকে পাত্রীকে করানো হয়েছে৷’

নেহার মত প্রত্যেকেই এইরকম ছোট ছোট ধাপে সমাজকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারেন৷

Advertisement
---