কলেজের পুরুষ শৌচালয়ে বসছে সিসি ক্যামেরা

লখনউ: পরীক্ষার সময় ঘন ঘন শৌচালয়ে যাবার প্রবণতা পড়ুয়াদের মধ্যে একটু বেশিই বেড়ে যায়৷ অনেকে শৌচালয়ে রেখে দেয় বই৷ কেউ বা রাখে চোথা৷ মেলে বন্ধুর সঙ্গে পরামর্শ করার সুযোগ৷ তবে এবার শৌচালয়ে যাওয়ার আগে সাবধান৷ এই সব কাজ করলেই তা চলে আসবে কলেজ কর্তৃপক্ষের গোচরে৷ কারণ সেখানে বসতে চলেছে সিসিটিভি ক্যামেরা৷

এবার কলেজের পুরুষ শৌচালয়ে বসতে চলেছে নজরদারি ক্যামেরা৷ এমনই সিদ্ধান্ত উত্তরপ্রদেশের আলিগড়ের ধর্ম সমাজ ডিগ্রি কলেজ কর্তৃপক্ষের৷ পরীক্ষার হলে টুকলি আটকাতেই এই চরম সিদ্ধান্ত৷ স্বাভাবিকভাবেই পড়ুয়ারা এই সিদ্ধান্তের জেরে ক্ষিপ্ত৷ তাদের গোপনীয়তায় আঘাত করা হচ্ছে বলে সোচ্চার হন তারা৷ কলেজ কর্তৃপক্ষের এমন সিদ্ধান্তের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন পড়ুয়াদের একটা বড় অংশ৷ তবে এত কিছুর পরেও নিজেদের সিদ্ধান্তে অনড় ধর্ম সমাজ ডিগ্রি কলেজ কর্তৃপক্ষ৷

তিন আগে পুরুষ শৌচালয়ে সিসিটিভি ক্যামেরার বিষয়টি নজরে আসে কিছু পড়ুয়ার৷ এরপরই তারা ঘটনার প্রতিবাদ জানান৷ এত প্রতিবাদের মাঝেও নিজেদের সিদ্ধান্তে অটল কলেজ কর্তৃপক্ষ৷ কলেজে অধ্যক্ষ হেম প্রকাশ গুপ্তা জানান, অনেকে পকেটে করে চোথা নিয়ে আসে৷ এরপর শৌচালয়ে গিয়ে টুকলির কাজ সেরে আসে৷ সিসিটিভি ক্যামেরা বসানোর পর সেই প্রবণতা বন্ধ হবে৷ অপরদিকে হিন্দু সংগঠনের যুব নেতারা এই সিদ্ধান্তের তীব্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে৷ অমিত গোস্বামী নামে এক ছাত্র নেতা জানিয়েছে, এই সিদ্ধান্ত ছাত্রদের ব্যক্তিগত জীবনে নাক গলানোর সামিল৷

Advertisement ---
---
-----