রাজ্যের সরকারি কর্মীদের নিরাশ করলেন না, বড় ঘোষণা করলেন মমতা

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: এই বছর পঞ্জিকা মতে শনি ও রবিবার দু’দিন স্বরস্বতী পুজোর তিথি ছিল৷ তবে শাস্ত্রজ্ঞদের মতামত অনুযায়ী রবিবার পুজো করাটাই শ্রেয় বলে মনে করছেন অনেকে৷ আর এর প্যাচে পড়ে বাঙালির ঘরে ঘরে দু’দিনই পুজো আয়োজন করা হয়েছে৷ আর অর মধ্যে সবচেয়ে খুশির বিষয় হল সোমবার সরস্বতী পুজো উপলক্ষে ছুটি ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার৷ ফলে শনি রবি এমনিতেই ছুটি কাটিয়েছেন রাজ্যে সরকারি কর্মীরা। এবার আগামীকাল সোমবারও ছুটি কাটাবেন সরকারি কর্মচারীরা৷ সব মিলিয়ে টানা তিনদিনের ছুটি কাটালেন সরকারি কর্মীরা।

রাজ্য সরকার ছুটির ব্যাপারে মুক্তহস্ত, তা বিলক্ষণ জানেন সরকারি কর্মীরা৷ তবে এবছর ছুটির দিনে সরস্বতী পুজো পড়ায় কর্মীরা ভেবেছিলেন এবার আর হয়তো সরস্বতী লাভ হল না তাদের৷ কিন্তু সরকারি কর্মীদের একপ্রকার চমক দিয়েই এই ছুটি ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার।

মাঘ মাসের শুক্লা পঞ্চমী তিথিতে দেবী সরস্বতীর বন্দনা করা হয়। এবছর শনিবার বেলা করেই পঞ্চমী লাগে। পঞ্চমী ছেড়ে যায় রবিবার সকালে৷ তাই কেউ কেউ শনিবারকে বাগদেবীর আরাধনার দিন মেনে নিয়েছেন৷ আবার কেউ শাস্ত্ররীতি মেনে রবিবার সকাল সকাল পুজো কঈন৷ কিন্তু ঘরে ঘরে সরস্বতী পুজো আর লক্ষ্মী পুজোর ভারে পুরোহিত পাওয়াই দায় হয়ে পড়ে বাঙালীর৷ তাই খানিকটা পেশাদার পুরোহিতদের কথা ভেবেই শনিবার পঞ্চমী লাগার পরই পাড়ায় পাড়ায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শুরু হয়ে যায় পুজো। কারণ রবিবার সকালের সময়টি বড্ড কম।

---- -----