অটোয়া:  পাবলিক টয়লেটে যে মহিলা ও পুরুষদের জন্য আলাদা ব্যবস্থা থাকে সেটা সবারই জানা। শুধু টাই নয়, টয়লেটে মহিলা পুরুষদের জন্যে আলাদা চিহ্ন যুক্ত সাইনবোর্ডও ব্যবহার করা থাকে। কিন্তু কানাডায় একটি বার্ষিক জাতীয় প্রদর্শনী উৎসবে এবার এমন টয়লেটের ব্যবস্থা করা হয়েছে যেখানে মহিলা, পুরুষ বা ট্রান্সজেন্ডার সবাই যেতে পারবেন। এবং তার জন্য একটা আলাদা চিহ্নও আবিস্কার করা হয়েছে।
চিহ্নটি হচ্ছে একটি মানুষের মতো যার দেহের অর্ধেকটা মহিলার এবং অর্ধেকটা পুরুষের। তার নিচে লেখা ‘উই ডোন্ট কেয়ার’, অর্থাৎ ‘আমরা এর তোয়াক্কা করি না’। এই চিহ্নটি নিয়ে এখন সোশ্যাল মিডিয়াতে শুরু হয়েছে জোর বিতর্ক।  অনেকে বলছেন এই চিহ্নটি দিয়ে যারা ট্রান্সজেন্ডার অর্থাৎ মহিলা থেকে পুরুষ বা পুরুষ থেকে মহিলা হয়েছে – তাদের একধরণের স্বীকৃতি দেওয়া হচ্ছে। একসময় আমেরিকাতে এই ধরণের চিহ্নযুক্ত টয়লেট বিতর্ক সৃষ্টি করেছিল। তবে এখন ব্রিটেন বা কানাডাতেও ব্যবসা বা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এথরণের সবরকম লিঙ্গের মানুষের টয়লেট চালু হচ্ছে। অবশ্য এর যে বিরোধিতা হচ্ছে না তাও নয়।
সমালোচকরা বলছেন এর ফলে পুরুষরা ট্রান্সজেন্ডারের ভান করে মহিলাদের টয়লেটে ঢুকে পড়তে পারে, এবং তাতে মহিলা বা শিশুরা ঝুঁকির মুখে পড়তে পারে। ট্রান্সজেন্ডার অধিকারকর্মীরা বলছেন, অনেক পুরুষ এরকম ভান না করেও টয়লেটে ঢুকে মেয়েদের আক্রমণ করেছে – এমন ঘটনাও আছে। গত সোমবারই টেক্সাস রাজ্যের একটি আদালত, ‘স্কুলগুলো যেন ট্রান্সজেন্ডার ছাত্রদের তাদের লিঙ্গ অনুযায়ী বাথরুম ব্যবহার করতে দেয়’ এমন একটি সরকারি আদেশ আটকে দিয়েছে।

----
--