ভোপাল: বিকেল পাঁচটা৷ স্কুল থেকে বেরিয়ে বাড়ির যাচ্ছিল নবম শ্রেণির এক ছাত্রী৷ ঠিক তখনই তার উপর ঝাঁপিয়ে দুই এক যুবক৷ তাদেরই মধ্যে একজন মেয়েটিকে জড়িয়ে ধরে৷ তার পর তার শ্লীলতাহানি করে৷

ঘটনাস্থল মধ্যপ্রদেশের ভোপাল৷ সেখানকার একটি স্কুলের সামনে মঙ্গলবার ঘটনাটি ঘটেছে৷ এর পর কোনও মতে মেয়েটি ওই দুই যুবকের হাত থেকে নিজেকে ছাড়াতে সক্ষম হন৷ তার পর সে বাড়িতে পালিয়ে আসে৷

আরও পড়ুন: আজ মহাষ্টমী, সকালের অঞ্জলিতেই মণ্ডপে মণ্ডপে ভিড়

ঘটনার পর থেকেই মেয়েটি আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে রয়েছে৷ তার অভিযোগ, ঘটনার কথা কাউকে জানালে তাকে খুনের হুমকি দেয় ওই দুই যুবক৷ যদিও ঘটনাটি যখন ঘটছিল, তখন ঘটনাস্থল দিয়ে স্থানীয় মানুষজন যাতায়াত করছিলেন৷ মেয়েটির অভিযোগ, তাঁরা সব দেখেও কেউ সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসেননি৷

মেয়েটি বাড়িতে এসে মা-বাবাকে সব জানায়৷ তার পর মা-বাবার সঙ্গে গিয়ে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে৷ এই ঘটনায় পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে৷ তবে এখনও কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি৷

আরও পড়ুন: সুখবর! বাড়ল সাধারণ প্রভিডেন্ট ফান্ডে সুদের হার

কাকতালীয় ভাবে ওই একই সময়ে শহরের অন্যপ্রান্তে একই ধরনের আরও একটি ঘটনা ঘটে৷ এক্ষেত্রেও স্কুলের সামনেই এক ছাত্রী শ্লীলতাহানির শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ৷

ওই মেয়েটি দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রী৷ সে স্কুলেরই তিন ছাত্রের হাতে অত্যাচারিত হয়েছে৷ অভিযুক্ত তিনজন মেয়েটির থেকে বয়সে ছোট৷ তারা ওই স্কুলের অষ্টম, নবম ও দশম শ্রেণির ছাত্র৷ মেয়েটির অভিযোগের ভিত্তিতে ওই তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ৷

আরও পড়ুন: সাত সকালে এনকাউন্টারে খতম দুই জঙ্গি, শহিদ পুলিশ

--
----
--