লখনউ: ফের একবার চিকিৎসা ব্যবস্থার বেহাল অবস্থা প্রকাশ্যে৷ স্থান উত্তর প্রদেশ৷ হাসপাতাল ফিরিয়ে দেওয়ার ফলে রাস্তার ধারেই প্রসব করলেন এক মহিলা৷ রাজ্যের শ্রাবস্তি জেলার ভিঙ্গা এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে৷ মঙ্গলবার বিকেলে এই ঘটনা ঘটে৷

প্রসব যন্ত্রণা ওঠার পর স্ত্রী সুনিতাকে নিয়ে সিরসিয়া হাসপাতালে ছোটেন তাঁর স্বামী রমেশ৷ কিন্তু বেড নেই বলে তাদের ফিরিয়ে দেয়

Advertisement

হাসপাতাল৷ এরপর শুরু হয় হাসপাতাল থেকে হাসপাতালে ঘোরা আর প্রত্যাখ্যাত হওয়া৷ কোনও হাসপাতালই তাঁর স্ত্রীকে ভরতি নিতে চায়নি বলে অভিযোগ রমেশের৷

আরও পড়ুন: ‘মহাত্মা গান্ধী বেঁচে থাকলে, তাঁকেও গ্রেফতার করত মোদী সরকার’

সিরসিয়া হাসপাতাল থেকে তাঁরা যান ভিঙ্গা জেলা হাসপাতালে৷ সেখান থেকে বাহরিচের হাসপাতালে৷ কিন্তু কোথাও ভরতি করা হয়নি সুনিতাকে৷

রমেশ জানান, তাঁর কাছে বেশি টাকা ছিল না৷ বাধ্য হয়ে রাস্তার ধারেই প্রসব করেন সুনিতা৷ গোটা ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন শ্রাবস্তির জেলাশাসক দীপক মিনা৷

কেন কোনও হাসপাতাল সুনিতাকে ভরতি করলনা, তার তদন্তের পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট চেয়ে পাঠানো হয়েছে হাসপাতালগুলির কাছ থেকে৷

জেলাসাসক জানান রাস্তার ধারে এক শিশুর জন্ম হয়েছে, এই খবর পেয়েছে প্রশাসন৷ তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে৷ দোষী সাব্যস্ত হলে অবশ্যই উপযুক্ত শাস্তি দেওয়া হবে৷

----
--