কি কাণ্ড! শহরের রাস্তায় ঘণ্টা দুয়েক ধরে ঘুরল আস্ত ট্যাংক

রিচমন্ড: ভর সন্ধেয় শহরের রাস্তায় চলতে শুরু করল একটা আস্ত ট্যাংক। যুদ্ধ লাগল নাকি! আতঙ্কে পড়ি মরি অবস্থা শহরবাসীর। থামিয়ে দেওয়া হল ট্রাফিক। দানবাকৃতি ও যান দেখে সাধারণ মানুষের তখন গলদঘর্ম অবস্থা। এমনই দৃশ্যের সাক্ষী ছিল ভার্জিনিয়া।

ওদিকে পুলিশের তখন ঘাম ছুটছে ট্যাংক খুঁজতে। আস্ত ট্যাংক খোয়া গিয়েছে আর্মি ক্যাম্প থেকে। আর সেই ট্যাংক নিয়ে কেউ ঘুরে বেড়াচ্ছে রাস্তায়। খবর জেনেই মাথায় হাত পুলিশ কর্তাদের। সব ফোর্স নিয়ে ধাওয়া করা শুরু হয়ে গেল সঙ্গে সঙ্গে। প্রায় ঘণ্টা দুয়েক ধরে ব্যস্ত শহরের রাস্তায় চলল চরম নাটক।

মঙ্গলবার স্থানীয় সময় ৭টা ৫০ মিনিট নাগাদ ভার্জিনিয়ার ব্ল্যাকস্টোনে একটি আর্মি ন্যাশনাল গার্ড বেস ‘ফোর্ট পিকেট’ থেকে খোয়া যায় ওই সেনা যান। ওই মিলিটারি ভেইকল ড্রাইভ করে কেউ চম্পট দেয়। যদিও তাতে কোনও অস্ত্র ছিল না। ৬৫ কিলোমিটার/প্রতি ঘণ্টা বেগে চলছিল ওই যান।

- Advertisement -

যখন ট্যাংকটি রিচমন্ডে পৌঁছয়, তখন সেটিকে ঘিরে ফেলে একাধিক পুলিশের গাড়ি। পুলিশ হেলিকপ্টার থেকে স্পটলাইট ফেলা হল সেই ট্যাংকের উপর। ক্যাপিটোল স্কোয়্যারে অবশেষে ধরা পড়ল সেই যান। ভার্জিনিয়ার স্পিকার অফ দ্য হাউস পার্কার স্লেবগ বলেন, ‘একটা মারাত্মক ঘটনা। কেউ একটা ফোর্ট পিকেট থেকে ট্যাংক নিয়ে পালিয়ে গিয়েছিল।’

ধরা পড়ার পর জানা যায়, ওই ব্যক্তি আসলে একজন সেনা জওয়ান। তবে ঘটনার জেরে কারও কোনও আঘাত লাগেনি বা ক্ষয়ক্ষতিও হয়নি।

Advertisement ---
---
-----