‘পাকিস্তানের সেনা প্রধানকে আলিঙ্গন করে চরম ভুল করেছেন সিধু’

চণ্ডীগড় : পাকিস্তান যাওয়াকে সমর্থন করেছিলেন, কিন্তু পাকিস্তানের সেনা প্রধান কামার জাভেদ বাজওয়াকে আলিঙ্গন করার বিষয়টি মেনে নিতে পারলেন না পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং৷ নভজ্যোত সিং সিধু পাকিস্তানে যান প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে৷ সেই সফরকে স্বাগত জানান পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী৷ তবে তার পরের ঘটনাকে আর সমর্থন করলেন না তিনি৷

অমরিন্দরের মতে প্রতিদিন দেশের জওয়ানরা শহিদ হচ্ছেন। তারই মাঝে পাক সেনা প্রধানকে আলিঙ্গন করেছেন সিধু৷ তাঁর এই পদক্ষেপের তীব্র প্রতিবাদ করা উচিত৷ অমরিন্দর আরও বলেন সিধুর বোঝা উচিত দেশের সেনানী প্রাণ দিচ্ছে পাক সেনাপ্রধানের জন্যই৷

পাকিস্তানে গিয়ে তাঁর আচরণের জন্য দলের মধ্যেই যে সমালোচিত হবেন তিনি, তা হয়ত বুঝতে পারেননি সিধু নিজেও৷ অমরিন্দর সমালোচনা করে সেই ভুলটাই ধরিয়ে দেন৷ অমরিন্দর আরও বলেন, সিধু নিজের ক্রিকেটীয় যোগ্যতায় পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর শপথগ্রহণে আমন্ত্রণ পেয়েছেন৷ এর সঙ্গে কোনও রাজনৈতিক দল বা রাজনীতির যোগ নেই৷

- Advertisement -

শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে পাকিস্তানের হবু প্রেসিডেন্ট মাসুদ খানের পাশে বসেছিলেন সিধু৷ সেই প্রসঙ্গে অমরিন্দরের জবাব, কে মাসুদ খান, সে সম্পর্কে হয়ত জানতেন না সিধু৷ জানলে পাশে বসতেন না৷
তবে সিধুর পাকিস্তান সফর নিয়ে ইতিমধ্যেই জলঘোলা করতে শুরু করে দিয়েছে বিজেপি৷ গোটা ঘটনাকে দেশের প্রতি বিশ্বাসঘাতকতা বলে ব্যাখ্যা করেছে গেরুয়া শিবির৷ তবে কংগ্রেসের পক্ষ থেকে কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি৷ সিধুর বক্তব্য সৌজন্যের খাতিরেই তাঁর এই পাকিস্তান সফর৷

পাশাপাশি, পাক সেনাপ্রধানকে আলিঙ্গন করার ঘটনারও ব্যাখ্যা দিয়েছেন সিধু৷ তিনি বলেছেন পাক সেনা প্রধান শান্তির বার্তা দিয়েছেন৷ একাধিক ছবি এবং ভিডিয়োতে দেখা যায় সিধুর সঙ্গে কথা বলছেন জাভেদ বাজওয়া৷ তাই দুজনের মধ্যে কী নিয়ে কথা হয়েছে তা জানতে বিভিন্ন মহলেই আগ্রহ তৈরি হয়েছিল। উত্তর দিলেন সিধু নিজেই।

তিনি বলেন আলাপ হওয়ার পর সেনা প্রধান তাঁকে বলেন তিনি ক্রিকেটার হতে চেয়েছিলেন। কিন্তু পারেননি। তাছাড়া পাক সেনা প্রধান দু’ দেশের মধ্যে শান্তির স্থাপনের কথাও বলেছেন বলে দাবি ভারতের এই প্রাক্তন ক্রিকেটারের৷

Advertisement
---